চীন এক সপ্তাহেই হাজার বেডের হাসপাতাল বানাল: আন্তর্জাতিক ডেস্ক, নতুন খবর |

করোনাভাইরাসে বিপর্যস্ত চীন। রবিবার সকাল পর্যন্ত দেশটিতে এই ভাইরাসে ৩০৪ জন নিহত এবং প্রায় ১৫ হাজার আক্রান্ত হয়েছেন। রোগীদের চিকিৎসা সেবা দিতেও হিমশিম খাচ্ছে কর্তৃপক্ষ। এমন অবস্থায় সম্প্রতি নতুন করে নির্মাণের ঘোষণা দেয়া দুই হাসপাতালের কাজ প্রায় সম্পন্ন হয়েছে।
গত ২৫ জানুয়ারি চীন ঘোষণা দেয় যে, করোনা ভাইরাসে আক্রান্তদের চিকিৎসার জন্য দুটি হাসপাতালের একটি এক সপ্তাহ এবং অপরটি দশদিনের মধ্যে নির্মাণ করা হবে।
ঘোষণার পরপরই পুরোদমে হাসপাতাল দুটি নির্মাণের কাজ শুরু হয়। এরই মধ্যে একটি হাসপাতাল প্রায় প্রস্তুত হয়ে গেছে। চীনা কর্তৃপক্ষ আশা করছে, আগামীকাল (সোমবার) একটি হাসপাতালে চিকিৎসা সেবা দেয়া শুরু করা যাবে।
নির্মাণাধীন দুটি হাসপাতালে ২ হাজার ৬০০ এরও বেশি বেড থাকবে। চীনের উহান শহর থেকেই করোনাভাইরাস বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়েছে। এই শহরেই নির্মিত হচ্ছে হাসপাতাল দুটি।
হাসপাতাল নির্মাণের ঘোষণা দেয়ার পর থেকে প্রায় চার হাজার শ্রমিক ধাপে ধাপে দিন-রাত মিলিয়ে কাজ করছেন। নির্মাণক্ষেত্রে শতাধিক ভারী মেশিন ব্যবহৃত হচ্ছে।
হওশেনশান হাসপাতালটি ২৫ হাজার বর্গমিটার এলাকাজুড়ে নির্মিত হচ্ছে। এতে এক হাজারের বেশি বেড থাকবে। এটিই নির্মাণ শুরু হওয়ার সাত দিন পরই (৩ ফেব্রুয়ারি) উদ্বোধনের জন্য প্রস্তুত হয়ে যাবে বলে আশা কর্তৃপক্ষের।
অপর লেইশেনশান হাসপাতালটিতে থাকবে ১ হাজার ৬০০ এরও বেশি বেড। এটি প্রায় ৭৫ হাজার বর্গমিটার এলাকাজুড়ে নির্মিত হচ্ছে। এই হাসাপাতালটি নির্মাণ শুরুর দশ দিনের (৬ ফেব্রুয়ারি, বুধবার) মধ্যে উদ্বোধন হবে বলে আশা করছেন সংশ্লিষ্টরা।
এছাড়া করোনাভাইরাস প্রতিরোধী পোশাক তৈরি করতেও নিরলস কাজ করে যাচ্ছেন সংশ্লিষ্টরা।

নতুন খবর/তুম

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *