এবার মুম্বাইকে পাকিস্তানের সঙ্গে তুলনা কঙ্গনার:বিনোদন ডেস্ক |

মুম্বাইয়ের পালি হিলে বেআইনিভাবে অফিস তৈরি করেছেন বলিউড অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাউত। বুধবার এমন অভিযোগে তার সেই অফিস কার্যত গুঁড়িয়ে দিয়েছে বিএমসি। এ ঘটনায় ক্ষুব্ধ কঙ্গনা মুম্বাইকে এবার ভারতের প্রতিবেশী ও শত্রু দেশ পাকিস্তানের সঙ্গে তুলনা করেছেন। অফিস ভাঙার কয়েকটি ছবি ইনস্টাগ্রামে শেয়ার করে এই ঘটনাকে গণতন্ত্রের মৃত্যু বলেও আখ্যায়িত করেছেন।

বুধবার সকালে যখন কঙ্গনার অফিস ভেঙে দেয়ার একের পর এক ছবি এবং ভিডিও প্রকাশ্যে আসতে শুরু করে, তখন থেকেই প্রায় গোটা ভারত জুড়ে চর্চায় চলে আসে কঙ্গনার সঙ্গে মুম্বাই সরকারের বিবাদের বিষয়টি। এদিন দুপুরে বিজেপি সরকারের দেয়া ওয়াই প্লাস নিরাপত্তায় দিল্লি থেকে মুম্বাই এসে পৌঁছান নায়িকা। শিবসেনারা হুমকি দিয়েছিল, কঙ্গনাকে মুম্বাইয়ে ঢুকতে দেয়া হবে না। যার কারণে তাকে এই বিশেষ নিরাপত্তা দেয় মোদি সরকার।

বুধবার মুম্বাইয়ে নিজের বাড়িতে পৌঁছেই মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরের বিরুদ্ধে তোপ দাগেন কঙ্গনা। অফিসে ভেঙে ফিল্ম মাফিয়াদের সঙ্গে জোট বেঁধে তার বিরুদ্ধে উদ্ধব ঠাকরে প্রতিশোধ নিয়েছেন বলেও মন্তব্য করেন নায়িকা। পাশাপাশি তিনি এও বলেন, মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী যা-ই করুক না কেন, তাতে তার মনোবল ভাঙতে পারবে না। উপরন্তু আরও বেশি করে তিনি সরব হবেন।

কঙ্গনা স্পষ্ট জানিয়ে দেন, অযোধ্যার পাশাপাশি তিনি কাশ্মীর নিয়েও সিনেমা নির্মাণ করবেন তার প্রযোজনা সংস্থা মনিকর্ণিকা ফিল্মস থেকে। এর আগে পুলিশ প্রশাসনের বিরুদ্ধে তোপ দেগে মুম্বাইকে পাকিস্তান অধিকৃত কাশ্মীরের সঙ্গে তুলনা করেন কঙ্গনা। বলেন, সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যু-তদন্তে তারা চরম গাফেলতি করেছে। এ জন্য মুম্বাই পুলিশের লজ্জা হওয়া উচিত।

কঙ্গনার এই মন্তব্যের পরই ক্ষেপে যান শিবসেনারা। তারা শহরের বিভিন্ন জায়গায় প্রতিবাদ মিছিল করেন, কঙ্গনার ছবি পোড়ান। দলটির মুখপাত্র সঞ্জয় রাউত টুইট করে কঙ্গনাকে মুম্বাইয়ে না ফেরার হুমকি দেন। তিনি প্রশ্ন তোলেন, ‘যে শহর কঙ্গনাকে নাম, যশ, খ্যাতি, টাকা সবকিছু দিয়েছে, সে শহর সম্পর্কে তিনি বাজে মন্তব্য কীভাবে করতে পারেন।’

পাল্টা টুইট করেন সাহসী কঙ্গনাও। তিনি হুঁশিয়ারি দিয়ে লেখেন, ‘পা-চাটার দলদের হঠাৎ করেই মহারাষ্ট্রের উপর ভালোবাসা উথলে উঠছে। মহারাষ্ট্র কারও বাবার নয়। আগামী ৯ সেপ্টেম্বর আমি মুম্বাইতে ফিরব। আমি যখন বিমানবন্দরে নামব তখন টুইট করে তা সবাইকে জানিয়ে দেব। কারও বাবার ক্ষমতা থাকলে আমাকে যেন আটকায়।’

কথা মতো বিজেপি সরকারের দেয়া নিরাপত্তা নিয়ে বুধবার ঠিকই মুম্বাইয়ে ফিরেছেন ‘কুইন’ খ্যাত অভিনেত্রী কঙ্গনা। কিন্তু এসে তার কষ্টে গড়া স্বপ্নের প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান মনিকর্ণিকা ফিল্মসের অফিসটাকে আর আস্ত পাননি। ভেঙে গুড়িয়ে দিয়েছে মুম্বাই পৌরসভা। যদিও বুধবার দুপুরে কঙ্গনার অফিস ভাঙার বিষয়ে নিষেধাজ্ঞা দেয় মুম্বাই আদালত। কিন্তু তার আগে যা হওয়ার হয়ে গেছে।

নতুন খবর/তুম

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *