নাটোরে জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক ও সদর উপজেলা চেয়ারম্যানসহ ৭ নেতা কর্মিকে হত্যার হুমকি দিয়ে বেনামে নাটোর প্রেসক্লাবে চিঠি Reviewed by Momizat on . নাটোর প্রতিনিধি : নাটোর সদর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শরিফুল ইসলাম রমজানসহ আ’লীগের ৭ নেতাকর্মীকে প্রাণনাশের হুমকি দিয়ে দু নাটোর প্রতিনিধি : নাটোর সদর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শরিফুল ইসলাম রমজানসহ আ’লীগের ৭ নেতাকর্মীকে প্রাণনাশের হুমকি দিয়ে দু Rating:
You Are Here: Home » জেলার খবর » নাটোর » নাটোরে জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক ও সদর উপজেলা চেয়ারম্যানসহ ৭ নেতা কর্মিকে হত্যার হুমকি দিয়ে বেনামে নাটোর প্রেসক্লাবে চিঠি

নাটোরে জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক ও সদর উপজেলা চেয়ারম্যানসহ ৭ নেতা কর্মিকে হত্যার হুমকি দিয়ে বেনামে নাটোর প্রেসক্লাবে চিঠি

নাটোর প্রতিনিধি : নাটোর সদর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শরিফুল ইসলাম রমজানসহ আ’লীগের ৭ নেতাকর্মীকে প্রাণনাশের হুমকি দিয়ে দুটি উড়ো চিঠি দেয়া হয়েছে। । হুমকিপ্রাপ্ত হলেন জেলা পরিষদ সদস্য ও জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক শফিউল আযম স্বপন, সাবেক জেলা ছাত্রলীগ সভাপতি আব্দুল্লাহ আল সাকিব বাকী, ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক শরিফুল ইসলাম শাহীন, জেলা তাঁতীলীগ সভাপতি মশিউর রহমান, সাধারণ সম্পাদক শফিকুল ইসলাম শফিক, ৩ নং দিঘাপতিয়া আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক কাজী শরিফুল ইসলাম বিদ্যুৎ।

সাদা খামে ঢোকানো চিঠিগুলো শনিবার দুপুরের কোন এক সময়ে নাটোর প্রেসক্লাবের কনফারেন্সরুমের দরজার সামনে অজ্ঞাত কেউ ফেলে রেখে যায়। দুপুরে বাড়ি যাবার সময় প্রেসক্লাবের অফিস সহকারী বিশ্বজিৎ চিঠিটি দেখে প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক আল মামুনকে জানায়। খাম খুলে দুটো চিঠি দেখে তা নাটোর সদর থানায় জানানো হয়। পরে পুলিশ নাটোর প্রেসক্লাবে থেকে ঠিঠি দুটি থানা হেফাজতে নিয়ে যায়।

সাদা খামের ভিতর থাকা একটি চিঠিতে উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান শরিফূল ইসলাম রমজানকে একটি ও অপর একটিতে জেলা পরিষদ সদস্য শফিউল আজম স্বপনসহ অপর ৭ নেতাকর্মীকে প্রাণনাশের হুমকি দেয়া হয়।  চিঠিতে ৭ জনকে মৃত্যুর জন্য প্রস্তত থাকার জন্য নির্দেশ দিয়ে বলা হয়, নাটোরে তাদের আর কোন স্থান নেই। তাদের আনেক সুযোগ দেয়া হয়েছে। তারা কোন সুযোগ কাজে লাগায়নি। তাদের মৃত্যুর অর্ডার হয়ে গেছে। এখন যেন তারা মৃত্যুর জন্য অপেক্ষা করে।

ঘটনার পরপরই হমকিপ্রাপ্ত উপজেলা চেয়ারম্যান শরিফুল ইনলাম রমজান, জেলা পরিষদ সদস্য শফিউল আযম স্বপন, সাবেক ছাত্রলীগ সভাপতি আব্দুল্লাহ আল সাকিব বাকী নাটো প্রেসক্লাবে উপস্থিত হন।

সদর উপজেলা চেয়ারম্যান শরিফুল ইসলাম রমজান এক তাৎক্ষনিক প্রতিক্রিয়ায় সাংবাদিকদের জানান, এ ধরনের হুমকির ঘটনায় তিনি ভীত নন। আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে তিনি আওয়ামী লীগের একজন প্রার্থী, তাই তার প্রতিপক্ষের লোকজন কেউ একাজ করে থাকতে পারে। তবে এ ঘটনায় অনান্যদের নিরাপত্তার জন্য জিডি করা হবে বলে জানান তিনি। এ সময় তদন্ত করে হুমকিদাতাদের গ্রেফতার করার জন্য আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে আহ্বান জানান রমজান।নাটোর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সিকদার মশিউর রহমান জানান, হুমকির ঘটনায় শুনেছি মাত্র।। লিখিত অভিযোগ পেলে তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

নতুনখবর/সোআ

Leave a Comment