ঢাকাআজ সোমবার ২১শে আগস্ট, ২০১৭ ইং ৬ই ভাদ্র, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ২৯শে জিলক্বদ, ১৪৩৮ হিজরীসকাল ৬:৪৬

  • মোহাম্মদপুরে যুবলীগ কার্যালয় ভাঙচুর, বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি লুট
  • জীবন যেমন চাই, তেমন হয়তো পাই না : মিথিলা
  • ‘হিন্দি ছাড়া অন্য আরও ভাষায় নির্মাণ হবে’: অমিতাভ রেজা
  • সালমান শাহ’র অপমৃত্যুর মামলা হত্যা মামলায় রূপান্তরের দাবি
  • সুনামগঞ্জে,দিরাইয়ে বিষাক্ত সাঁপের কামড়ে এক গৃহবধুর মৃত্যু
  • বোদায় গবীর মেধাবী ছাত্রীদের মাঝে বাইসাইকেল বিতরণ
  • সিদ্ধিরগঞ্জ থানা জাতীয় পার্টির সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হওয়ায় সেলিম ওসমান এমপির প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ
  • সিদ্ধিরগঞ্জে ১৫ আগষ্ট বঙ্গবন্ধুর শাহাদাৎ বার্ষিকী ও ১২ আগষ্ট শোকর‌্যালি উপলক্ষে স্বেচ্ছাসেবকলীগ মহানগরের প্রস্তুতিমূলক বর্ধিত সভা
  • গভীরতম শোকের মাস আগস্ট
  • জলঢাকায় কালীগঞ্জ বদ্ধভুমি পরিদর্শনে এডিশনাল আইজিপি
  • 275 বার পড়া হয়েছে «

    মুফতি হান্নানের সঙ্গে দেখা করলেন চার স্বজন

    নিজস্ব প্রতিবেদক : সাবেক ব্রিটিশ হাইকমিশনার আনোয়ার চৌধুরীর ওপর গ্রেনেড হামলা মামলায় ফাঁসির প্রহর গুনতে থাকা হরকাতুল জিহাদ নেতা মুফতি আব্দুল হান্নানের সঙ্গে শেষ দেখা করেছেন স্বজনরা।বুধবার সকাল সোয়া সাতটার দিকে মুফতি হান্নানের স্ত্রী ও মেয়েসহ পরিবারের চার সদস্য কাশিমপুর কেন্দ্রীয় হাইসিকিউরিটি কারাগারে হান্নানের সঙ্গে দেখা করেন। সেখানে প্রায় ৪৫ মিনিট সাক্ষাৎ শেষে তারা কারাগার থেকে বেরিয়ে আসেন। পরে একটি ভ্যানে চড়ে তারা কারাগার এলাকা ত্যাগ করেন।

    কাশিমপুর হাইসিকিউরিটি কেন্দ্রীয় কারাগারের জেল সুপার মিজানুর রহমান জানান, হান্নানের সঙ্গে দেখা করতে তাদের স্বজনদের কাছে মঙ্গলবার বার্তা পাঠানো হলে আজ সকালে হান্নানের স্ত্রী জাকিয়া পারভিন রুমা বেগম, বড় ভাই আলী উজ্জামান মুন্সী, মেয়ে নাজনীন ও নিশি খানম কারাগারে আসেন। কারাগারের ভেতর পৌনে এক ঘণ্টার মতো অবস্থানের পর তারা বেরিয়ে আসেন।মিজানুর রহমান বলেন, ফাঁসি কার্যকরের আগের সব ধরনের আইনি প্রক্রিয়া শেষ হওয়ায় দুই আসামির পরিবারের সদস্যদের খবর দেয়া হয়েছিল। তাদের মধ্যে হান্নানের পরিবার আসলেও এখনো মুফতি হান্নানের সহযোগী শরীফ শাহেদুল বিপুলের পরিবার দেখা করতে আসেনি। তবে আসামিদের সঙ্গে এটিই তাদের শেষ সাক্ষাৎ কিনা তিনি তা বলেননি।এদিকে কারাগার থেকে বেরিয়ে আসার পর হান্নানের ভাই আলীমুজ্জামান বলেন, ‘মুফতি হান্নান তাদের কাছে দোয়া চেয়েছেন এবং তার দুই মেয়ের দেখভাল করতে বলেছেন।’

    এর আগে সোমবার দুপুরে রাষ্ট্রপতি কর্তৃক নাকোচ করা মুফতি হান্নান ও বিপুলের প্রাণভিক্ষার চিঠি কারাগারে এসে পৌঁছায়। পরে বিপুল ও মুফতি হান্নানকে তা পড়ে শোনানো হয়।আইন অনুযায়ী তাদের ফাঁসি কার্যকরে আর কোনো বাধা নেই বলে জানায় কারা কর্তৃপক্ষ।২০০৪ সালে শাহজালাল (রা.) এর মাজারে তৎকালীন ব্রিটিশ হাইকমিশনার আনোয়ার চৌধুরীর ওপর গ্রেনেড হামলা মামলায় মুফতি হান্নান এবং তার দুই সহযোগীর ফাঁসির আদেশ দেয় আদালত। গত ১৯ মার্চ আপিল বিভাগ সব আইনি প্রক্রিয়া শেষে দণ্ড বহাল রাখে। পরে অপরাধের দায় স্বীকার করে মুফতি হান্নান ও তার দুই সহযোগী রাষ্ট্রপতির কাছে প্রাণভিক্ষার আবেদন করলে রাষ্ট্রপতি তা নাকোচ করে দেন। এর ফলে তাদের ফাঁসি কার্যকরে সব বাধা দূর হয়ে যায়। আইন অনুযায়ী যেকোনো সময় তাদের ফাঁসি কার্যকর করতে পারবে কারা কর্তৃপক্ষ।

    নতুনখবর/সোআ

    Comments

    comments

    পাঠকের কিছু জনপ্রিয় খবর

    বিশ্বজিৎ হত্যা : হাইকোর্টের রায় ৬ আগস্ট


    বিস্তারিত

    আবারও জা‌মিন পে‌লেন আরাফাত সা‌নি


    বিস্তারিত

    মাগুরায় স্ত্রী-কন্যা হত্যার দায়ে স্বামীকে মৃত্যুদন্ড দিয়েছে আদালত


    বিস্তারিত

    তাভেল্লা হত্যা: কাইয়ুমের ভাই মতিন জামিনে


    বিস্তারিত

    ১৫ বছরেও বিচার নেই মডেল তিন্নি হত্যার


    বিস্তারিত

    বছরের অর্ধেক দিন বন্ধ সুপ্রিম কোর্ট


    বিস্তারিত

    চতুর্থ শ্রেণীর স্কুল ছাত্রের বিরুদ্ধে সুনামগঞ্জে পুলিশ এসল্ট মামলায় আদালতে অভিযোগ পত্র দাখিল!


    বিস্তারিত

    আগেও একটি বিয়ে করেছেন ক্রিকেটার সানি


    বিস্তারিত

    মানিকগঞ্জে হত্যা মামলায় ৫ জনের মৃত্যুদণ্ডাদেশ


    বিস্তারিত

    সাংবাদিক হাবিব সরোয়ার আজাদকে বিজ্ঞ আদালত জামিন দিয়েছেন


    বিস্তারিত

    ‘তোরে জজ বানাইছে কেডা’ যারা বলে তাদের হাতে বিচার বিভাগ ছাড়া ঠিক হবে না


    বিস্তারিত

    জরুরি অবস্থায় বেআইনিভাবে অর্থ নিয়েছিল ডিজিএফআই: সুপ্রিম কোর্ট


    বিস্তারিত

    খালেদার ৩ মামলা স্থগিত


    বিস্তারিত

    সাঈদীর রিভিউ আজকের কার্যতালিকায়


    বিস্তারিত

    সুপ্রিম কোর্টে ছুটি শুরু, অবকাশকালীন বেঞ্চ গঠন


    বিস্তারিত

    মুফতি হান্নানের সঙ্গে দেখা করলেন চার স্বজন


    বিস্তারিত

    রাজন হত্যা: কামরুলসহ ৪ আসামির মৃত্যুদণ্ড বহাল


    বিস্তারিত

    প্রাণ ভিক্ষার আবেদন নাকচের কপি কারাগারে


    বিস্তারিত